Breaking News
Home / খেলাধুলা / এবার লঙ্কান চ্যালেঞ্জের সামনে বাংলাদেশ

এবার লঙ্কান চ্যালেঞ্জের সামনে বাংলাদেশ


আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের তিন ফরম্যাটে প্রায় দুই মাস (২৩ জানুয়ারি শেষ জয়) জয় শূন্য বাংলাদেশ দল। ব্যর্থতার বোঝা ক্রমেই ভারী হচ্ছে দলের উপর। প্রতি ম্যাচেই যোগ হচ্ছে ভুল, ব্যর্থতার লম্বা ফর্দ। ঘাটতি কাটিয়ে উঠার প্রত্যয়ও পরিপূর্ণতা পাচ্ছে না মাঠের ক্রিকেটে। বাংলাদেশ শিবিরে তাই জয়ের আশা উচ্চারিত হচ্ছে অস্ফুট স্বরে। এখন অনেক যদি-কিন্তুর ছায়ায় ঘেরা বাংলাদেশের জয়ের স্বপ্ন।
ভারতের বিপক্ষে পরাজয় দিয়ে শুরু করা নিদাহাস কাপে এবার শ্রীলঙ্কার চ্যালেঞ্জের মুখে বাংলাদেশ। প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে টুর্নামেন্টে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে আজ স্বাগতিক শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ। স্থানীয় সময় সাতটা ও বাংলাদেশ সময় সাড়ে সাতটায় শুরু হবে ম্যাচটি।
জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারিতে দেশের মাটিতে তিন ফরম্যাটেই লঙ্কানদের কাছে বিধ্বস্ত হয়েছিল টাইগাররা। অন্যদিকে কয়েকমাস আগেও সংগ্রাম করা শ্রীলঙ্কা শিবির এখন আত্মবিশ্বাসে টইটুম্বুর। ঘরের মাঠে লঙ্কানরা বরাবরই অপ্রতিরোধ্য। ভারতের বিরুদ্ধে দারুণ জয়ে যার সাক্ষর রেখেছে দিনেশ চান্দিমালের দল। তাই স্বাগতিকদের দাপটকে উতরে যেতে হলে আজ সেরা ক্রিকেটই খেলতে হবে বাংলাদেশকে।
তাসকিন আহমেদ বলছেন, একটি ম্যাচ হারলেও টুর্নামেন্টে ফাইনাল খেলার সুযোগ হারিয়ে যায়নি বাংলাদেশের। এখানে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে খেলাটা কঠিন চ্যালেঞ্জই মানছেন তিনি। ভালো বোলিংয়ের পাশাপাশি ব্যাটসম্যানদের কাছে বড় রান চাইছেন তিনি। প্রেমাদাসার ব্যাটিং উইকেটে অন্তত ১৭০-১৮০ রান করতে হবে। তাহলেই জয়ের সুযোগ দেখেন তাসকিন। তার আশা ঘুরে দাঁড়াবে বাংলাদেশ।
গতকাল গোটা দল বিশ্রামে থাকলেও ম্যাচ পূর্ব সংবাদ সম্মেলনে আসা এ তরুণ পেস বোলার বলেছেন, ‘আল্লাহর রহমতে এখনো আমাদের সুযোগ আছে। তিনটা ম্যাচ আছে। তিনটার মধ্যে দুইটা জিতলে সুযোগ থাকবে। আসলে এটা বড় চ্যালেঞ্জ। যেহেতু ওদের মাটিতে ওদের সাথে খেলা। চ্যালেঞ্জটা সহজ হবে না। ওরা ভালো অবস্থানে আছে। আমাদের ব্যাটিং, বোলিং দুই বিভাগেই ভালো অবদান লাগবে।’
শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৯ টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের জয় মাত্র দুটি। প্রেমাদাসায় দু’দলের শেষ সাক্ষাতে জয়ের হাসি অবশ্য টাইগারদেরই দখলে ছিল। গত বছর এপ্রিলে হওয়া সেই ম্যাচটি ছিল মাশরাফি বিন মুর্তজার বিদায়ী ম্যাচ। তাসকিনের মতে, ওই জয় প্রেরণা যোগালেও এখন বাস্তবতা হলো শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ম্যাচের চ্যালেঞ্জ অনেক বড়। আর একটা জয়ই দলটাকে ছন্দ ফেরাবে বলে বিশ্বাস করেন তিনি।
শ্রীলঙ্কার বোলিং কোচ রুমেশ রত্নানায়েকে অবশ্য মনে করেন, বাংলাদেশ বেশ শক্ত দল। গতকাল সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেছেন, ‘তারা শক্ত দল। তারা সেই দল যারা হোমে সব দলকে হারিয়েছে। শ্রীলঙ্কায় আমাদেরকে হারিয়েছে। তাই তারা শক্ত দল যেখানে খুব ভালো করার সামর্থ্যবান কয়েকজন আছে। আমরা তাদের জন্য প্রস্তুতি নিয়েছি।’
তবুও ছন্দহীন বাংলাদেশকে নিয়ে সতর্ক আছে শ্রীলঙ্কা। রত্মানায়েকের বিশ্বাস, আজ ভিন্ন কিছু দেখাতেই মাঠে নামবে মাহমুদউল্লাহর দল।

About জানাও.কম

মন্তব্য করুন