Breaking News
Home / খেলাধুলা / ব্রাজিলকে রুখে দিল সুইজারল্যান্ড

ব্রাজিলকে রুখে দিল সুইজারল্যান্ড


ফিলিপে কৌতিনিয়োর গোলে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা প্রথমার্ধে এগিয়ে গেলেও দ্বিতীয়ার্ধে গোল হজম করে ড্র দিয়ে বিশ্বকাপ শুরু করল ব্রাজিল। রোস্তভ অ্যারেনায় ১-১ গোলে ড্র করেছে তারা।

শুরুতে ব্রাজিলকে চেপে ধরার আভাস দিয়েছিল সুইজারল্যান্ড। তবে ফিলিপে কৌতিনিয়োর গোল সব শঙ্কা দূর করে সেলেসাওদের। প্রথমার্ধে ১-০ গোলে এগিয়ে থেকে শেষ করেছে ব্রাজিল।

৩ মিনিটে জারদান শাকিরির নিচু ক্রস থেকে বল পেয়েছিলেন জেমাইলি। কিন্তু তার শট গোলবারের উপর দিয়ে যায়। তবে থেমে থাকেনি ব্রাজিল। ১১ মিনিটে দারুণ সুযোগ তৈরি করে তারা। নেইমার ডিবক্সে ঢুকে প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডারদের ফাঁকি দিয়ে বল পাঠান পাউলিনিয়োর কাছে। কিন্তু বলে ঠিকমতো পা লাগাতে না পারায় লক্ষ্যভেদ করতে পারেননি বার্সেলোনা তারকা।

২০ মিনিটে রোস্তভ অ্যারেনায় ব্রাজিল সমর্থকদের উল্লাসে মাতান ফিলিপে কৌতিনিয়ো। নেইমার বাঁ প্রান্তে বল দিয়েছিলেন মার্সেলোকে। ব্রাজিল অধিনায়কের ক্রস সুইস ডিফেন্ডার বিপদমুক্ত করতে হেড করেন। কিন্তু সেটা পড়ে যায় কৌতিনিয়োর সামনে। বাঁকানো শটে সুইজারল্যান্ড গোলরক্ষক ইয়ান সোমারকে পরাস্ত করেন লিভারপুলের সাবেক তারকা।

বিরতির দুই মিনিট আগে কর্নার পায় ব্রাজিল। নেইমারের ক্রস থেকে থিয়াগো সিলভা হেড করেছিলেন লক্ষ্যের দিকে। কিন্তু পিএসজি ডিফেন্ডারের হেড গোলবারের উপর দিয়ে চলে যায়। প্রথমার্ধ সেলেসাওরা শেষ করে ১-০ গোলে এগিয়ে থেকে।

প্রথমার্ধের শুরুতে সুযোগ তৈরি করেও ব্যর্থ হয়েছিল ব্রাজিল। কিন্তু বিরতির পর ফিরেই সেই আক্ষেপ কাটায় তারা। ৫০ মিনিটে শাকিরির কর্নার থেকে উড়ে আসা ক্রসে দুর্দান্ত হেড করেন ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডারদের নজরের বাইরে থাকা স্টিভেন জুবের। ব্রাজিল গোলরক্ষক অ্যালিসনকে অসহায় করে বল জড়ায় জালে।

৫৮ মিনিটে ডিবক্সের সামনে কৌতিনিয়োর দুটি শট রুখে প্রতিহত হয় এবং বল পান নেইমার। কিন্তু পিএসজি তারকার প্রচেষ্টা কর্নারে পরিণত হয়।

কৌতিনিয়ো জোড়া গোলের ভালো সুযোগ পেয়েও সফল হতে পারেননি। ৬৯ মিনিটে বুক দিয়ে ঠেকিয়ে বলের নিয়ন্ত্রণ নেন তিনি। কিন্তু তার শট লক্ষ্যে না ‍ছুটে গোলবারের পাশ দিয়ে চলে যায়।

৭৯ মিনিটে গাব্রিয়েল জেজুসের বদলি নেমে ফিরমিনো একাই বল নিয়ে ছুটে যান ডিবক্সের মধ্যে। কোনাকুনি শটে গোল করতে চেয়েছিলেন তিনি। পারেননি, বল গোলবারের উপর দিয়ে জায়গা করে নেয় মাঠের বাইরে।

নির্ধারিত সময় শেষ হওয়ার ৩ মিনিট আগে নেইমারের হেড দারুণ দক্ষতায় লুফে নেন সোমার। পরের মিনিটেই পিএসজি ফরোয়ার্ডের ফ্রি কিক থেকে ফিরমিনোর হেড দূরে ঠেলে দেন সুইস গোলরক্ষক। কয়েক মুহূর্ত পরই মিরান্দার ভলি গোলপোস্টের পাশ দিয়ে গেলে স্কোর অপরিবর্তিত থাকে।

শেষ মুহূর্তে আবারও ফ্রি কিক পায় ব্রাজিল। নেইমার পারেননি লক্ষ্যের দেখা।

About জানাও.কম

মন্তব্য করুন